|

ক্রিকেটার চামেলী চিকিৎসা শেষে রাজশাহীতে ফিরলেন

প্রকাশিতঃ 4:54 pm | December 13, 2018

নাজিম হাসান, রাজশাহী প্রতিনিধি:
জাতীয় নারী ক্রিকেট দলের সাবেক অলরাউন্ডার রাজশাহীর চামেলী খাতুন ডান পায়ের লিগামেন্ট ছিঁড়ে যাওয়া এবং মেরুদন্ডের ব্যথার চিকিৎসা নিয়ে অবশেষে ভারতের চেন্নাই থেকে দেশে ফিরেছেন।

বুধবার সকালে তিনি রাজশাহীর নিজের বাড়িতে ফিরেছেন। বাড়ি ফিরেই তিনি পাশে থাকার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, রাজশাহী সদরের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা, সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন, বিসিবি ও আনসার ভিডিপির প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তিনি।

চামেলী জানান,এখন তিনি অনেকটাই সুস্থ। চামেলী নারী দলের হয়ে ১৯৯৯ থেকে ২০১১ পর্যন্ত খেলেছেন। কিন্তু আট বছর আগে পায়ের লিগামেন্ট ছিঁড়ে যাওয়াসহ মেরুদন্ডের হাড়ের ব্যথা নিয়ে তিনি দুর্বিসহ জীবনযাপন করছিলেন। সুষ্ঠু চিকিৎসার অভাবে যখন পুরো জীবনে অন্ধকার নেমে আসার অবস্থা তখন প্রধানমন্ত্রী সকল দায়িত্ব নিয়ে রাজশাহী থেকে ঢাকায় নেয়া হয় নারী ক্রিকেটার চামেলীকে। ভর্তি করা হয় ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে।সেখানে এক এক করে কেটে গেছে ১৭ দিন।

এসময় সিদ্ধান্ত হয় দেশেই হবে তার চিকিৎসা। কিন্ত দীর্ঘদিন অসুস্থ হয়ে পড়ে থাকা রোগী দাবি করেন দেশের বাইরে চিকিৎসার জন্য। অবশেষে সরকারি খরচে চিকিৎসা ব্যবস্থা করা হয় দেশের বাইরে। তখন ঢাকা পঙ্গু হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ভারতের ব্যাঙ্গালোরে চিকিৎসা জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করেন। উন্নত চিকিৎসার জন্য ২৩ নভেম্বর তাকে নিয়ে যাওয়া হয় ভারতে। সেখানে ১৮ দিন চিকিৎসা শেষে তিনি রাজশাহী ফিরেন। এখন ৬ মাস বিশ্রাম নিতে হবে তাকে।

অলরাউন্ডার চামেলী খাতুন জানান, অন ডে স্ট্যাটাস সামনে রেখে দলের প্রস্তুতি চলছিল ২০১১ সালে। এবি ফিল্ডিং প্রশিক্ষণ চলাকালীন পড়ে গিয়ে মারাত্মকভাবে আহত হই। পরে আবারো আবাহনী ক্রীড়া চক্র মাঠে প্রশিক্ষণে গিয়ে আরেক দফা আঘাত পাই।

এই ইনজুরি তার ক্রিকেট ক্যারিয়ার খাদের কিনারে এনে দাঁড় করিয়ে দেয়। এবং পরিবারের হাল ধরতে গিয়ে নিজের চিকিৎসা করাতে পারেননি তিনি। আশা করছেন, সুস্থ হয়ে আগামীতে আবারো মাঠে ফিরতে পারব্ েএবং দেশের হয়ে ভাল কিছু করবেন বলে তিনি জানান।