|

সাত দফা দাবিতে গাইবান্ধায় সাঁওতালদের গণ-অবস্থান

প্রকাশিতঃ ২:৩০ পূর্বাহ্ন | জানুয়ারী ১৭, ২০১৮

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধাঃ

পৈত্রিক সম্পত্তি ফেরত, সাঁওতাল হত্যা, অগ্নিসংযোগ, লুটপাট, ভাংচুর, নির্যাতনের বিচার ও ক্ষতিপূরণসহ সাত দফা দাবিতে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার সাঁওতালরা গণ-অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে গাইবান্ধা শহীদ মিনারে এ কর্মসূচি পালন করে তারা। সাহেবগঞ্জ-বাগদাফার্ম ভূমি উদ্ধার সংগ্রাম কমিটি, জাতীয় আদিবাসী পরিষদ, বাংলাদেশ আদিবাসী ইউনিয়ন, আদিবাসী বাঙ্গালী সংহতি পরিষদ ও জনউদ্যোগ গাইবান্ধা এ কর্মসূচির আয়োজন করে।

সকাল ৯টার পর থেকে গোবিন্দগঞ্জ থেকে বাসযোগে জেলা শহরে আসতে শুরু করেন সাঁওতালরা। এসময় তারা গাইবান্ধা-পলাশবাড়ী সড়কের পৌর এলাকার ৭ নম্বর গোডাউনের সামনে পুলিশের বাধার সম্মুখীন হন। পরে দুপুর পৌনে ১২টার দিকে সেখান থেকে একটি মিছিল নিয়ে পৌরপার্কের শহীদ মিনার চত্বরে এসে জমায়েত হন সাঁওতালরা।

শহীদ মিনার চত্বরে গণ অবস্থান কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন, জাতীয় আদিবাসী পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি রবীন্দ্রনাথ সরেন, গাইবান্ধা আদিবাসী বাঙালি সংহতি পরিষদের আহবায়ক অ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম বাবু, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) গাইবান্ধা জেলা শাখার সভাপতি মিহির ঘোষ, সাহেবগঞ্জ-বাগদাফার্ম ভূমি উদ্ধার সংগ্রাম কমিটির সহ-সভাপতি ফিলিমন বাস্কে প্রমুখ। কর্মসূচিতে গণসংগীত পরিবেশন করেন চুনি ইসলাম।

সাত দফা দাবিতে গাইবান্ধায় সাঁওতালদের গণ-অবস্থান-Aporadh-Barta

সাত দফা দাবিতে গাইবান্ধায় সাঁওতালদের গণ-অবস্থান-Aporadh-Barta

উল্লেখ্য, গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার কাটাবাড়ী ও সাপমারা ইউনিয়নের সাঁওতাল ও বাঙালিদের কাছ থেকে ১৯৬২ সালের ৭ জুলাই ১৮৪২ দশমিক ৩০ একর জমি কিনে নেয় রংপুর চিনিকল কর্তৃপক্ষ। পরে শর্তভঙ্গের অভিযোগ তুলে বাপ-দাদার জমি ফেরতের দাবি করে দুই বছরেরও বেশি সময় তারা বিভিন্ন আন্দোলন কর্মসূচি পালন করে। দাবি পূরণ না হওয়ায় ২০১৬ সালের ১ জুলাই সাহেবগঞ্জ-বাগদাফার্ম এলাকায় চিনিকলের সেসব জায়গা দখল করে ঘরতৈরি করেন সাঁওতালরা।

পরে একই বছরের ৬ নভেম্বর চিনিকল কর্তৃপক্ষ আখ কাটতে গেলে সাঁওতাল-পুলিশের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় তিনজন সাঁওতাল মারা যান। তীরবিদ্ধ হয়ে আহত হন পুলিশসহ প্রায় ২০জন। ঘটনার পর চিনিকল ও সাঁওতালদের পক্ষ থেকে গোবিন্দগঞ্জ থানায় পাল্টাপাল্টি মামলা দায়ের করা হয়। এসব মামলা আদালতে বিচারাধীন রয়েছে।

দেখা হয়েছে: 64
সর্বাধিক পঠিত
ফেইচবুকে আমরা

  • উপদেষ্টা সম্পাদকঃ আফজাল হোসেন হিমেল মোবাইল ০১৬১১-৫১৫৩২০
  • সম্পাদকঃ আরিফ আহমেদ
  • সহকারী সম্পাদকঃ সৈয়দ তরিকুল্লাহ আশরাফী মোবাইল ০১৯১৬-৯১৭৫৬৪
  • প্রকাশকঃ উবায়দুল্লাহ রুমি মোবাইল ০১৯১৬-২২৩৩৫৬
  • নির্বাহী সম্পাদকঃ মোঃ সবুজ মিয়া মোবাইল ০১৭১৮-৯৭১৩৬০
  • অফিসঃ ১২/২ পশ্চিম রাজারবাগ, বাসাবো, সবুজবাগ, ঢাকা ১২১৪
  • বার্তা বিভাগ মোবাইলঃ ০১৭১৫-৭২৭২৮৮
  • ই-মেইলঃ [email protected]
অত্র পত্রিকায় প্রকাশিত কোন সংবাদ কোন ব্যক্তি বা কোন প্রতিষ্ঠানের মানহানিকর হলে কর্তৃপক্ষ দায়ী নহে। সকল লেখার স্বত্ব ও দায় লেখকের।